বানিয়াচংয়ে দুইপক্ষের টেটাযুদ্ধে নারীসহ অর্ধশতাধিক আহত

হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার মুরাদপুর ইউনিয়নের তালিবপুর গ্রামে পূর্ব বিরোধের জের ধরে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ অন্তত অর্ধশতাধিক লোকজন আহত হয়েছে। গুরুতর আহত অবস্থায় টেটাবিদ্ধ অন্তত ১৫ জনকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। অন্যান্যদের হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। শুক্রবার দুপুরে তালিবপুর গ্রামে ঘন্টাব্যাপী এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আমিরুল ইসলাম জানান, একই এলাকার ফয়েজ মিয়াসহ তাদের লোকজনের সাথে গত এক বছর পুর্বে গরু দিয়ে জমির হালি খাওয়ানো কেন্দ্র করে বিরোধ সৃষ্টি হয়। এরই জেরধরে শুক্রবার দুপুরে তার ভাতিজা তৌহিদ ইসলাম জমিতে কাজ করতে গেলে প্রতিপক্ষের লোকজনের সাথে তার বাকবিতন্ডা হয়।

এক পর্যায়ে তারা তাকে মারধোর করলে উভয় পক্ষ দেশীয় অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। ঘন্টাব্যাপী চলা এ সংঘর্ষে নারীসহ অন্তত ৫০ জন আহত হয়। খবর পেয়ে স্থানীয়দের সহায়তায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করে পুলিশ।

গুরুতর আহতদের মধ্যে, জাহাঙ্গীর মিয়া, আম্বিয়া খাতুন, জহিরুল, সিহাব মিয়া, ওয়াহেদ মিয়া, তরিকুল ইসলাম, জুয়েল মিয়া, আফিয়া খাতুন, মাহমুদ মিয়া, সামায়ুন মিয়া, কুদ্দুছ মিয়া, রুয়েল মিয়া, আলামিন মিয়া, সুহেল মিয়া, সহিদুল ইসলাম, জালাল মিয়া, মোবারক মিয়া, তবারক মিয়া, কামরুল মিয়াকে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বানিয়াচং থানার (ওসি) মোঃ এমরান হোসেন জানান, পুর্ব বিরোধ নিয়ে দু’পক্ষের সংঘর্ষ হয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে স্থানীয়দের সহায়তায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে কি কারণে এ ঘটনা ঘটলো বিষয়টি পুলিশ তদন্ত করে দেখছে।

 


ডেইলিরূপান্তর/আরএ/এল.

  • 9
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ