কোম্পানীগঞ্জে তরুণীর মরদেহ উদ্ধার, প্রেমিকের বিরুদ্ধে মামলা

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে গলায় ফাঁস দিয়ে এক কিশোরী আত্মহত্যা করেছে। এ ঘটনায় ওই তরুণীর পরিবার প্রেমিকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে নিহতের পরিবার।

নিহত নুসরাত জাহান ফারহানা (১৯)। সে বসুরহাট পৌরসভা ৮নম্বর ওয়ার্ডের মর্ডাণ হাসপাতাল সংলগ্ন বিসমিল্লাহ মঞ্জিলের ভাড়াটিয়া ওমর ফারুকের মেয়ে।

বৃহস্পতিবার (৭ অক্টোবর) রাত সাড়ে আটটার দিকে কোম্পানীগঞ্জ থানা পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করে।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে বারোটার দিকে বাসার সিলিং ফ্যানের সাথে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে। পরে ঝুলন্ত অবস্থায় তরুণীর মরদেহ দেখতে পেয়ে পরিবারের সদস্যরা দ্রুত উদ্ধার করে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। খবর পেয়ে পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে প্রেরণ করে।

এ ঘটনায় নিহতের মা সাজেদা আক্তার বাদী হয়ে তরুণীর প্রেমিকের বিরুদ্ধে আত্মহত্যার প্ররোচেনার অভিযোগ এনে মামলা দায়ের করে। অভিযুক্ত প্রেমিক জহিরুল ইসলাম তৌসিফ (২৮) বসুরহাট পৌরসভা ৯নম্বর ওয়ার্ডের মো.সিরাজের ছেলে।

কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.সাইফুদ্দিন আনোয়ার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় নিহত তরুণীর মা বাদী হয়ে ওই তরুণীর প্রেমিকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। এ ঘটনায় পরবর্তীতে আইনগত প্রদক্ষেপ নেওয়া হবে।

 

ডেইলিরূপান্তর/আরএ/জি.

  • 5
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ