ইরানের শীর্ষ নেতার কার্যালয় বন্ধ করে দিল আজারবাইজান

সীমান্তে সামরিক মহড়াকে ঘিরে দুই প্রতিবেশী ইরান ও আজারবাইজানের উত্তেজনার পারদ ক্রমেই ওপরের দিকে উঠছে।

এর মধ্যে নতুনমাত্রা যোগ করেছে আজারবাইজানের একটি সিদ্ধান্ত। মঙ্গলবার দেশটির একটি রাষ্ট্রীয় আদেশে রাজধানী বাকুতে ইরানের শীর্ষ ধর্মীয় নেতা আয়াতুল্লাহ আলি খামেনির কার্যালয় বন্ধ করে দেওয়া হয়। খবর আনাদোলুর।

বাকুতে হুসেইনি মসজিদে রয়েছে আয়াতুল্লাহ খামেনির কার্যালয়। মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে আজারবাইজানের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র এহসান জাহিদভ জানান, করোনার কারণে বাকুতে ইরানি শীর্ষ নেতার কার্যালয়টি সাময়িকভাবে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

আয়াতুল্লাহ খামেনির কার্যালয়ের সঙ্গে ওই মসজিদটিও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

সম্প্রতি আজারবাইজান সীমান্তে ‘খায়বারের বিজয়ীরা’ নামে এক বিশাল সামরিক মহড়া চালিয়েছে ইরান। আজারি প্রেসিডেন্ট আলিয়েভ ওই মহড়ার সমালোচনা করে বক্তব্য রাখেন।

এর জবাবে তেহরান হুশিয়ারি দিয়ে জানায়, প্রতিবেশী দেশগুলোতে ইহুদিবাদী ইসরাইলকে ইরানবিরোধী তৎপরতা চালাতে দেবে না তেহরান।

এদিকে মধ্যপ্রাচ্যের দুই আঞ্চলিক প্রতিদ্বন্দ্বী সৌদি আরব ও ইরানের সম্পর্ক জোড়া লাগাতে সম্প্রতি দেশ দুটি চারদফা গোপন বৈঠক করেছে। সৌদি পররাষ্ট্রমন্ত্রী ফয়সাল বিন ফারহান আল সৌদ গত রোববার এই তথ্য জানিয়েছেন।

এক সংবাদ সম্মেলনে সৌদি পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ইরানের সঙ্গে তার দেশের সর্বশেষ বৈঠক হয়েছে গত ২১ সেপ্টেম্বর। তবে কোথায় বৈঠক হয়েছে এবং বৈঠকে কারা প্রতিনিধিত্ব করেছেন তা সব জানাননি তিনি।

ডেইলিরুপান্তর/আবির 

  • 24
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ