ইউএনও’র হস্তক্ষেপে বাল্যবিবাহ থেকে রক্ষা পেল স্কুল ছাত্রী

নোয়াখালীর চাটখিল উপজেলার পরকোট ইউনিয়নে প্রশাসনের হস্তক্ষেপে বাল্যবিবাহের হাত থেকে রক্ষা পেয়েছে দশম শ্রেণির স্কুল ছাত্রী মুনিয়া আক্তার (১৫)। সে পরকোট দশঘরিয়া ইউনিয়ন উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম  শ্রেণির ছাত্রী এবং একই গ্রামের মনির হোসেনের মেয়ে।

গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার পরেকাট গ্রামের ওই ছাত্রীর বাড়িতে গিয়ে বিয়ে বন্ধ করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এ এস এম মোসা।

ইউএনও বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারি দশম শ্রেণির এক ছাত্রীর শুক্রবার বিয়ের আয়োজন করা হয়েছে। বর ভাঙর ভীমপুর গ্রামের আনোয়ার হোসেন। খবর পেয়ে তাৎক্ষণিক গতকাল দুপুরে পুলিশ নিয়ে বিয়ে বাড়িতে উপস্থিত হয়ে বিয়ে বন্ধ করে দেওয়া হয়। একই সাথে বাল্যবিবাহের আয়োজন করায় ভ্রাম্যমাণ আদালতে কনের বাবাকে ১হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। ১৮ বছরের আগে মেয়েকে বিয়ে দেবে না মর্মে লিখিত মুচলেকা দিয়ে ছাড়া পান মেয়ের বাবা।

 

ডেইলিরূপান্তর/আরএ/জি.

  • 20
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ