সিলেটে বাসার ছাদে ফাঁস দিয়ে দুই বোনের আত্মহত্যা

সিলেট নগরীর আম্বরখানা মজুমদারি এলাকায় আপন দুই বোন বাসার ছাদে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন।

মঙ্গলবার (২১ সেপ্টেম্বর) সকালে পুলিশ তাদের মরদেহ উদ্ধার করে।

তারা হলেন- সিলেট নগরের আম্বরখানা মজুমদারি এলাকার মৃত কলিমউল্লাহর মেয়ে শেখ রাণী জমিদার (৩৮) ও ফাতেমা বেগম (২৭)। তারা ৩১ নম্বর বাড়িতে থাকতেন।

স্হানীয় কাউন্সিলর রেজাউল হাসান কয়েস লোদী জানান, এমন ঘটা আসলেই দুঃখজনক। আমি যতটুকু জেনেছি। তাদের চাচাতো ভাই বলেছে, গতরাত দুই বোন চাচাতো ভাইয়ের বাসায় গিয়ে থাকার জায়গা দিতে বলে। এসময় চাচাতো ভাই বলেন, কেন? তোমাদের বাসায় কী হয়েছে? তখন দুই বোন বলেছে… ঘরে থাকতে পারবো না, তুমি গেলে তুমিও মরবে।

তবে নিহতদের আপন মা ও ভাইয়েরা জানান, রাণী জমিদারের মানসিকতার সমস্যা রয়েছে। ঘরে কোন দ্বন্দ্ব হলে সে মরে যাবে, আত্মহত্যা করবে বলে প্রায় সময়ই বলে থাকতো।

ছোট বোন কেন আত্মহত্যা করলো এমন প্রশ্নের জবাবে তারা জানান, তারা দু’জন একসাথেই থাকতো। তাদের বিয়ের কথা চলছিলো। দুই বোনের একসাথে রহস্যজনক মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

পুলিশ জানায়, সকালে পরিবারের সদস্যরা বাসার ছাদে দুই বোনের মরদেহ দেখতে পান। পরে তারা পুলিশকে খবর দেয়। পারিবারিক সমস্যার কারণে আত্মহত্যা করে থাকতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

আম্বরখানা পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) মফিজুল ইসলাম বলেন, তারা মোবাইল ফোন ব্যবহার করতেন না। বাসায় একটি ল্যান্ডফোন ছিল। রাতের কোনো এক সময় ছাদের ওপর থাকা পিলারের রডের সঙ্গে ঝুলে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন।

তিনি আরো বলেন, তারা চার বোন। এর মধ্যে একজনের বিয়ে হয়েছে। তিনি যুক্তরাজ্যে থাকেন।

ডেইলিরুপান্তর/আবির 

  • 24
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ