নকলায় পুলিশ ও স্বেচ্ছাসেবকদের তৎপরতায় বাল্যবিবাহ বন্ধ

শেরেপুর জেলার নকলা উপজেলায় গনপদ্দী ইউনিয়নের এক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের স্বেচ্ছাসেবক ও পুলিশ বিভাগের তৎপরতায় বাল্যবিবাহ থেকে রক্ষা পেলো দশম শ্রেণিতে পড়ুয়া অপ্রাপ্ত বয়স্ক এক শিক্ষার্থী। শুক্রবার (৩ সেপ্টেম্বর) রাতে উপজেলায় গনপদ্দী ইউনিয়নের কিংকরপুর এলাকায় এ বিবাহ বন্ধ করা হয়।

জানা গছে, শুক্রবার সন্ধ্যার পূর্ব মুহুর্তে স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবকরা গোপন সংবাদে জানতে পারেন যে, শুক্রবার রাতে গনপদ্দী ইউনিয়নের কিংকরপুর এলাকায় স্কুল পড়ুয়া এক মেয়ের বাল্যবিবাহের আয়োজন করা হয়েছে। পরে স্বেচ্ছাসেবকরা সরেজমিনে গিয়ে এর সত্যতা পেয়ে প্রশাসনে খবর দেন। খবর পেয়ে প্রশাসনের নির্দেশে নকলা থানার পুলিশ বিয়ে বাড়িতে গিয়ে বাল্যবিবাবহটি বন্ধ করেদেন।

পুলিশ জানায়, উপজেলায় গনপদ্দী ইউনিয়নের কিংকরপুর এলাকার শামছুল হকের মেয়ে গনপদ্দী উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির এক শিক্ষার্থীর সাথে একই ইউনিয়নের বাড়ইকান্দি এলাকার আমজাদ আলীর ছেলে অটোরিক্সা চালক সেলিম মিয়ার বিয়ের আয়োজনের সংবাদ পেয়ে তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে বিয়ে বন্ধ করেদেন। তবে বিয়ে বাড়িতে পুলিশ পৌঁছার আগেই বাড়ির সকল পুরুষ লোক ও বরযাত্রীরা শটকে পড়েছিলেন বলে পুলিশ জানায়।

 

ডেইলিরূপান্তর/আরএ/এস.

  • 25
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ