মেসি চলে যাওয়ার পর অর্থনৈতিক সমস্যা ঘুচে যাচ্ছে বার্সেলোনার!

আর্থিক হিসাব নিয়ে ভালোই ঝামেলা বেঁধেছিলো বার্সেলোনার। খেলোয়াড় বিক্রি হচ্ছিল না, অনেকেই বেতন কমাচ্ছিলেন না। ফলে লিওনেল মেসির বেতন অর্ধেকে নেমে আসার পরও নিয়ম না ভেঙে তাঁকে ধরে রাখা সম্ভব হয়নি বার্সার পক্ষে। তাই কান্নাভেজা চোখে বিদায় নিয়ে পিএসজিতে চলে গেছেন মেসি।

মেসির বিদায়ের পর হঠাৎ করেই আর্থিক জট খুলতে শুরু করেছে বার্সেলোনায়। চার অধিনায়ক বেতন কমিয়ে অর্ধেক করে নিয়েছেন। আয়ের পথও বেড়ে গেছে। গতকাল একসঙ্গে দুজন খেলোয়াড় বিক্রি করেছে বার্সেলোনা। যে অঙ্কগুলো এই মাসের শুরুতে ক্লাবের অ্যাকাউন্টে যোগ হলেই হয়তো মেসিকে আর ছাড়তে হতো না!

বার্সেলোনা একাডেমির বহু প্রতিভার মধ্যেও একটু ব্যতিক্রম ছিলেন ইলাইস মরিবা। অনেকের চোখেই ভবিষ্যৎ পগবাকে ধরে রাখতে ১০ কোটি ইউরোর রিলিজ ক্লজ দিয়ে রেখেছিল বার্সেলোনা। কিন্তু এই মিডফিল্ডার আর বার্সেলোনায় খেলার অপেক্ষায় থাকতে রাজি নন। বেতনের চাহিদাও অনেক বেশি ছিল বলে চুক্তি নবায়ন করছিলেন না। শেষমেশ বার্সেলোনা তাঁকে তাই বিক্রির সিদ্ধান্ত নিয়েছিল।

সেখানেও নানা ঝামেলা হয়েছে। বার্সেলোনার সঙ্গে টটেনহাম কথা পাকা করে ফেলেছিল। কিন্তু বেতন ও চুক্তি স্বাক্ষরের বোনাস নিয়ে সন্তুষ্ট হতে না পারা মরিবা বেঁকে বসেন। কোনোভাবেই তাঁকে টটেনহামে যাওয়ার ব্যাপারে রাজি করানো যায়নি।
বাড়তি বোনাসের আশায় লাইপজিগে যাবেন বলেই সিদ্ধান্ত নিয়ে রেখেছিলেন এই ১৮ বছর বয়সী। গতকাল তাঁর ইচ্ছা পূরণ হয়েছে। তবে বার্সেলোনাও নিজেদের দিকটা গুছিয়ে নিয়েছে। তাদের প্রাথমিকভাবে দাবি করা দামের বেশি পাচ্ছে ক্লাবটি।

মরিবাকে বিক্রি করে প্রাথমিকভাবে ১ কোটি ৬০ লাখ ইউরো পাচ্ছে বার্সেলোনা। শর্ত সাপেক্ষে আরও ৬০ লাখ ইউরো পাওয়ারও সুযোগ থাকছে।

বার্সেলোনার পরের দলবদলটি চমকে দিয়েছে অনেককে। কয়েক দিন ধরেই শোনা যাচ্ছিল, এমারসন রয়ালকে পেতে চায় টটেনহাম। বার্সেলোনা এমারসনকে বহু আগেই কিনে ধারে পাঠিয়েছিল রিয়াল বেতিসের কাছে। বেতিসের কাছ থেকে এই দলবদলেই ৯০ লাখ ইউরোতে কেনা হয়েছে তাঁকে। প্রতিশ্রুতিশীল এই ডিফেন্ডারের জন্য টটেনহামের প্রাথমিক প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছিল বার্সেলোনা। তখন মনে হয়েছিল, অবশেষে বার্সায় থিতু হচ্ছেন এমারসন।

কিন্তু কাল এমারসনকে বিক্রি করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বার্সেলোনা। প্রাথমিকভাবে ২ কোটি ১০ লাখ ইউরো পাবে বার্সা। ২২ বছরের এই রাইটব্যাকের জন্য শর্ত সাপেক্ষে আরও ৬০ লাখ ইউরো পাওয়ার সম্ভাবনা আছে বার্সেলোনার। এ মৌসুমে লিগে বার্সেলোনার হয়ে প্রথম তিন ম্যাচেই খেলেছেন এই রাইট ব্যাক ।

ডেইলিরুপান্তর/আবির

  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ