উদ্বোধনের অপেক্ষা নান্দাইল পৌরসভার নতুন ভবন

নান্দাইল পৌরসভা ১৯৯৭ সালে তৃতীয় শ্রেণীর পৌরসভা হিসেবে যাত্রা শুরু করে। পৌরসভার নিজস্ব ভবণ না থাকায় যাত্রা শুরুর পর থেকেই পৌরসভা জনকল্যাণে বিভিন্ন বেসরকারী ভবনে ভাড়া নিয়ে পৌরসভার কার্যক্রম পরিচালিত করে আসছে।

পৌর সভার ৯ টি ওয়ার্ড ২৩ বর্গকিমি আয়তন। এখানে প্রায় ৩৩ হাজারের বেশি মানুষের বসবাস। খ’ শ্রেণীর পৌরসভা থেকে ২০১৯ সালে ক’ শ্রেণীতে উন্নতি হয়। প্রথম শ্রেণীর পৌরসভায় সকল রকম সুযোগ সুবিধা প্রদাণ করে থাকলেও নিজস্ব ভবন না থাকায় পৌরসভার কার্যক্রম স্ববির ছিল। ১৯৯৭ সাল থেকে ২০২১ পর্যন্ত ভাড়া নিয়ে অস্থায়ী কার্যালয়ে পৌরসভার কার্যক্রম পরিচালিত হয়েছে।

যেখানে পৌরসভার নিজস্ব ভবন না থাকায় নতুন ভবন স্থাপন অনেকটা স্বপ্নের মত ছিল। বর্তমান সাংসদ আলহাজ্ব আনোয়ারুল আবেদীন খান তুহিন পৌর সভার স্থায়ী ঠিকানার জন্য উদ্যোগ গ্রহণ করেন। গত বছরের ২৫ অক্টোবর পৌরসভার চন্ডিপাশা ৮ নং ওয়ার্ডে কিশোরগঞ্জ ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে পৌর সভার ভবন নির্মাণের জন্য ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন করেন।

এক বছরের মাথায় প্রায় ৩০ লাখ টাকায় পৌরসভা ভবন নির্মাণ করা হয়। ভবনটি হাফ বিল্ডিং অবকাঠামোতে নির্মাণ করা হয়ছে। ভবটিতে লাগানো হয়েছে বাহারি রঙের রঙিন টিন। দেয়ালে করা হয়েছে কারুকার্য,শোভা পাচ্ছে সরকারের উন্নয়নের চিত্র। বসানো হয়েছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, সাংসদ আনোয়ারুল আবেদীন খান তুহিন, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হাসান মাহমুদ জুয়েল,পৌর মেয়র রফিক উদ্দিন ভূঁইয়ার ছবি।

নিজস্ব ভবন নির্মাণের ফলে পৌর সভার কার্যক্রম আরো গতিশীল হবে বলে পৌর বাসিন্দারা জানিয়েছে। এখন শুধু উদ্বোধনের অপেক্ষা। আগামী ৯ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার স্থায়ী নীড়ে ফিরবে নান্দাইল পৌরসভা। ইতিমধ্যে নান্দাইল পৌরসভায় অপরাধ নির্মূলে গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে বসানো হয়েছে আধুনিক সিসি ক্যামেরা। যা নান্দাইল পৌরসভাকে সবসময় সুরক্ষা করবে।

নান্দাইল পৌর সভার বাসিন্দা মো.আব্দুস ছাত্তার বলেন, দীর্ঘ পর হলেও আমরা পৌরসভা বাসী পৌর সভার নিজস্ব ভবন পাচ্ছি। এটা আমাদের আনন্দের। এতে করে আমাদের পৌরসভার কার্যক্রম ও সেবার মান আরো বৃদ্ধি পাবে।

নান্দাইল পৌরসভার ৮ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর খায়রুল ইসলাম মানিক বলেন, নতুন ভবনের ফলে আমাদের একটা স্থায়ী একটা জায়গা হল। আলাদা আলাদা দপ্তরের সেবা প্রদান করা যাবে। আমার ওয়ার্ডে ভবনটি স্থাপন করা হয়েছে সে জন্য এমপি মহোদয়কে ধন্যবাদ জানাই।

নান্দাইল পৌরসভার মেয়র রফিক উদ্দিন ভূঁইয়া বলেন, দীর্ঘ ২৪ বছর নান্দাইল পৌরসভার নিজস্ব ভবন ছিল না। এখন সাংসদ আনোয়ারুল আবেদীন খান তুহিন এমপির প্রচেষ্টায় পৌরসভার নিজস্ব কার্যালয় পেল। অল্প দিনের মধ্যেই ভবনটি উদ্বোধন করে অফিসিয়াল কার্যক্রম শুরু করে দিব। পৌরবাসীর স্বপ্ন অবশেষে পূরণ হল।

ডেইলিরুপান্তর/আবির

  • 5
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ