টেকনাফ মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের অভিযানে ৪০ হাজার ইয়াবাসহ দুই রোহিঙ্গা আটক

কক্সবাজারের টেকনাফ থানাধীন উংচিপ্রান শরনার্থী ক্যাম্প ও উখিয়ার কুতুপালং শরণার্থী ক্যাম্পে পৃথক অভিযান চালিয়ে ৪০ হাজার পিস ইয়াবাসহ দুই রোহিঙ্গাকে আটক করা হয়েছে।

২৯ আগষ্ট সকালে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর টেকনাফ বিশেষ জোনের সহকারী পরিচালক মো. সিরাজুল মোস্তফার নেতৃত্বে এ অভিযান চালানো হয়।

আটকরা হলেন, টেকনাফ উনচিপ্রাং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের সৈয়দ হোসনের ছেলে জামাল হোসেন (২০) ও উখিয়া কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ইমান হোসনের ছেলে নুরুল হক (২১)।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের ডিএনসি টেকনাফ সহকারী পরিচালক মো. সিরাজুল মোস্তফার জানান, ২৯ আগষ্ট ভোর ৫ টায় মাদকের একটি বড় চালানের জন্য টেকনাফ থানাধীন উংচিপ্রাং রোহিঙ্গা শরনার্থী ক্যাম্প এলাকায় রাস্তার উপর ২০ হাজার পিস ইয়াবাসহ জামাল হোসেনকে (২০)আটক করা হয়।

তার কাছ থেকে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে পরে সকাল ৮ টার দিকে উখিয়া থানাধীন কুতুপালং রোহিঙ্গা শরনার্থী ক্যাম্প এলাকায় রাস্তা হতে ২০ হাজার পিস ইয়াবাসহ নুরুল হককে আটক করা হয়। আটককৃতরা অন্যান্য সিন্ডিকেট সদস্যদের নাম প্রকাশ না করে জানায়, তারা দীর্ঘ দিন ধরে পরস্পরের সহযোগিতায় মাদক ব্যবসা চালিয়ে আসছিল।

এছাড়া এলাকাবাসীও তাদের বিরুদ্ধে মাদক ব্যবসাসহ বিভিন্ন অপরাধে জড়িত থাকার অভিযোগ জানিয়ে আসছিল।এঘটনায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে দুইজনের বিরুদ্ধে টেকনাফ মডেল থানা ও উখিয়া থানায় নিয়মিত মামলা দায়ের প্রক্রিয়া চলমান। রোহিঙ্গা ক্যাম্পে মাদক বিরোধী এই অভিযান অব্যাহত থাকবে।সিন্ডিকেট সদস্যদের গ্রেফতারের চেষ্টা করা হচ্ছে। পাশাপাশি সকল বাহিনীর সম্মিলিত প্রচেষ্টায় উখিয়া-টেকনাফে মাদক নির্মূল করা যাবে বলে তিনি জানান।

 

ডেইলিরূপান্তর/আরএ/এস.

  • 204
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ