সাভারে সেপটিক ট্যাংকে নেমে শালা-দুলাভাইয়ের মৃত্যু

সাভারে সেপটিক ট্যাংক পরিষ্কার করতে নেমে দুই ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। এঘটনায় নিহতদের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

রবিবার রাতে বিষয়টি নিশ্চিত করেন ভাকুর্তা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ শাহ-আলম। এর আগে দুপুরে সাভারের ভাকুর্তা এলাকার চাইরাবাড়ি গ্রামের সোহেল রানার বাড়ির সেপটিক ট্যাংকে পড়ে তাদের মৃত্যু হয়।

নিহতরা হলেন-সাভারের চাইরাবাড়ি এলাকার ওসমান গণির ছেলে সোহেল চৌধুরী ও একই এলাকার বাবুল হোসেনের ছেলে সোহেল রানা। তারা সম্পর্কে শ্যালক ও ভগ্নিপতি।

পুলিশ বলছে, সোহেল রানা তাদের বাড়িতে নতুন সেপটিক ট্যাংক নির্মান করেন। সেপটিক ট্যাংকটির মুখ বন্ধ ছিল। তারা দুই জন দুপুরে ট্যাংকের মুখ খুলে পরিস্কার করতে নামে। সেখানে বায়োগ্যাস জমে থাকলে তারা গুরুতর অসুস্থ হন। পরে তাদের উদ্ধার করে সাভারের এনাম মেডিকেলে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

ভাকুর্তা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ শাহ-আলম বলেন, খবর পেয়ে আমরা তাদের উদ্ধার করে এনাম মেডিকেলে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। এব্যাপারে একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের হয়েছে। তবে নিহতের পরিবার ময়নাতদন্ত ছাড়াই মরদেহ নেওয়ার আবেদন করলে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

 

ডেইলিরূপান্তর/আরএ/এস.

  • 19
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ