কঠিন সময় পার করছেন জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা

চলতি বছরের জানুয়ারী থেকেই টানা খেলাধুলার মধ্য দিয়েই যাচ্ছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। জানুয়ারী থেকে জুলাইয়ের শেষ, এই সাত মাসের মধ্য চার মাসই বায়োবাবল নিয়মের বেড়াজালের মধ্যেই কাটাতে হয়েছে সাকিব-তামিম-মাহমুদুল্লাহদের।

কঠিন কোয়ারেন্টিন নিয়ম আর জৈব সুরক্ষা বলয়ে থেকে এবার প্রায় হাঁপিয়ে উঠেছেন ক্রিকেটাররা, পার করছেন বেশ কঠিন সময়। এইতো আজকেই জিম্বাবুয়ে থেকে কোয়ারেন্টিন শেষ করে দেশে ফিরেছেন টাইগাররা, দেশে ফিরেই আবার জৈব সুরক্ষাবলয়ের বেড়াজালে বন্ধি। দেখা করতে পারেন নি পরিবারের সাথেও। কেমন আছেন ক্রিকেটাররা এমন প্রশ্নের জবাবে জনপ্রিয় পোর্টাল জাগো নিউজ ২৪ কে ফোনালাপে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের মিডিয়া ম্যানেজার রাবিদ ইমাম জানিয়েছেন,

‘সেই জানুয়ারি থেকে শুরু। এই যে আমরা (টিম বাংলাদেশ) মাত্র দেশে ফিরে আসলাম। এসেই হোটেলে ৩ দিনের কঠোর কোয়ারেন্টািইনে থাকতে হবে। এর মধ্যে ৭২ ঘন্টায় হোটেল রুমের বাইরে বের হবারও সুযোগ নেই। পরিবার-পরিজনের সাথে দেখা করা তো দূরে।’

এছাড়াও রাবিদ আরো জানান, পরিবারকে ছাড়া এতো সময় বাইরে থাকাটা মানসিকভাবেও বিপর্যস্ত করছে টাইগারদের। তবে এতোকিছুকে একপাশে আগলে রেখে জাতীয় দলের জন্য পারফর্ম করতে হচ্ছে তাদের। তিনি বলেন,

‘আসলে অনেক বড় মানসিক ধকল যাচ্ছে ক্রিকেটারদের ওপর দিয়ে। এক কথায় পরিবার-পরিজন তথা আপন ভুবন থেকে বিচ্ছিন্ন জীবন। যা অন্য সময়ের তুলনায় নেহায়েত অস্বাভাবিক। কোথায় নির্ভার হয়ে খেলা আর সেখানে এখন খেলতে হচ্ছে টানা হোটেলবন্দি অবস্থায়, প্রচণ্ড মানসিক অস্থিরতার মধ্যে। এ মানসিক ধকল কাটিয়েই খেলতে হচ্ছে। পারফর্ম করতে হচ্ছে। এর মধ্যে ভালো খেলার তাগিদ থাকছে, দল জেতানোর তাড়াও আছে। সবমিলিয়ে কঠিন পরিস্থিতি।’

ডেইলিরূপান্তর/আরএ.

  • 93
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ