রাণীশংকৈলে স্বপরিবারে বিষপান, বেচে গেলেন মা-বাবা মারা গেল শিশু

ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলে এক দম্পতি ও তার সাত মাসের একমাত্র শিশু কন্যাকে বিষপান করিয়ে আত্নহত্যার চেষ্টা করে। এতে দম্পতি বেঁচে গেলেও, কন্যা শিশুটি বিষক্রিয়ায় মারা গেছেন।

এমন ঘটনাটি ঘটে শুক্রবার ১৬ এপ্রিল রাত আনুমানিক সাড়ে এগারোটায় উপজেলার কদমপুর উমরাডাঙ্গী পূর্বপাড়া গ্রামে।

বিষপান করা দম্পতি হলেন- ওই গ্রামের আজিমউদ্দীনের ছেলে ইয়াসিন আলী ও তার স্ত্রী শিমু এবং দম্পতির একমাত্র সাত মাসের কন্যা সন্তান।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, পারিবারিক কলহের জেরে রাগের বশবর্তী হয়ে ওই দম্পতি নিজেরা সহ তাদের সাত মাসের কন্যা সন্তানকে রাসায়নিক বিষ খাইয়ে আত্নহত্যার চেষ্টা করে।
তবে তাদের বিষ খাওয়ার ঘটনা টের করতে পেরে পরিবারের অন্য সদস্যরা সকলকে উদ্ধার করে ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। তবে চিকিৎসায় তাৎক্ষণিক দম্পতিকে বাচাঁনো গেলেও সাত মাসের ছোট শিশুটি প্রাণে বাচাঁনো সম্ভব হয়নি ।

রাণীশংকৈল থানা ওসি এস,এম জাহিদ ইকবাল মুঠোফোনে জানান, ঘটনাটি জানার পর তাৎক্ষনিক আমরা ব্যবস্থা নিয়েছি এবং ছোট কন্যা শিশুটিকে ময়নাতদন্ত করার জন্য ঠাকুরগাঁও মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় ইয়াসিনের পরিবার থেকে একটি লিখিত অভিযোগ থানায় দেওয়া হয়েছে। বিষয়টি গুরত্বসহকারে দেখা হচ্ছে।

 

 

 

ডেইলিরূপান্তর/আরএফ/এম

এ বিভাগের আরো সংবাদ