‘রিজেন্ট-জেকেজির কর্তাব্যক্তিদের গ্রেফতার প্রমাণ করে সরকারের অবস্থান কঠোর’

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, করোনাভাইরাসের টেস্ট নিয়ে প্রতারণার অভিযোগে রিজেন্ট হাসপাতাল ও জেকেজি হেলথকেয়ারের কর্তাব্যক্তিদের (চেয়ারম্যান) গ্রেফতার প্রমাণ করে অনিয়মের বিরুদ্ধে শেখ হাসিনা সরকারের অবস্থান কঠোর।

তিনি বুধবার সকালে সচিবালয়ে নিজ দফতরে ব্রিফিংয়ে একথা বলেন।

বিভিন্ন খাতে অনিয়মের বিরুদ্ধে সরকারের চলমান কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, মুখোশের আড়ালে যতই মুখ লুকিয়ে রাখুক না কেন কোনো অপরাধীই অপরাধ করে ছাড় পাবে না।

তিনি বলেন, যে যতই ক্ষমতাশালী হোক শেষ পর্যন্ত তাকে ধরা পড়তেই হবে,অপরাধীর কোনো দলীয় পরিচয় নেই, দুর্বৃত্তের কোনো দল নেই।

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বন্যাদুর্গত এলাকায় মানুষের মাঝে রান্না করা খাবার বিতরণে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা বাস্তবায়নে প্রশাসনকে সহযোগিতা করতে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের আহ্বান জানান।

বিশেষজ্ঞদের মতে, কোরবানির ঈদে করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়তে পারে,তাই পশুরহাট এবং অন্যান্য এলাকায় সমাগম এড়িয়ে ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চললে ঝুঁকি কমাতে পারে বলে মনে করেন সেতুমন্ত্রী।

তিনি বলেন, তা না হলে ক্ষণিকের অবহেলা কিংবা শৈথিল্য ঈদের সার্বজনীন আনন্দ সার্বজনীন বিষাদে রূপ নিতে পারে।

ওবায়দুল কাদের আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, সবাই যদি সচেতনতার দূর্গ গড়ে তুলি তাহলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এ ভয়কে জয় করব ইনশাআল্লাহ।

করোনা যুদ্ধে সম্মুখসারির সাহসী যোদ্ধাদের ভূয়সী প্রশংসা করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ইতিমধ্যে অনেক সম্মুখসারির যোদ্ধা মানবতার কল্যাণে এবং সেবাকে মহান ব্রত করে প্রাণ দিয়েছেন, তাদের এ আত্মদান জাতি চিরকাল শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করবে।

এর আগে সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে বাংলাদেশে নিযুক্ত জাপানের রাষ্ট্রদূত ইতো নাওকি ও জাইকা প্রধান হায়াকোয়া ইউহো এক সৌজন্য সাক্ষাতে মিলিত হন।

এসময় জাপানের রাষ্ট্রদূত জাপান সরকারের অর্থায়নে বাংলাদেশের সড়ক পরিবহন খাতের প্রকল্পসমূহ বিশেষ করে মেট্রোরেলসহ অন্যান্য প্রকল্পের অগ্রগতি নিয়ে একটি ত্রি-পাক্ষিক সভার প্রস্তাব করেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের আরো সংবাদ