৬৫ এমপি করোনা পরীক্ষার নমুনা দিয়েছেন

চলমান সংসদের ১৫ মন্ত্রী-এমপি কোভিড ১৯-এ আক্রান্ত হয়েছেন। তারা চলতি অধিবেশনে সংসদেও এসেছিলেন। এ কারণে অন্যরাও সংক্রমিত হতে পারেন– এ আশঙ্কায় সব সংসদ সদস্যকেই করোনাভাইরাস শনাক্তের পরীক্ষা করাচ্ছে সংসদ সচিবালয়।

সংসদ সচিবালয় সূত্র জানিয়েছে, বাজেট অধিবেশনের আগামী ৪ কার্যদিবসে অংশ নেবেন এমন ১৭০ এমপির নমুনা পরীক্ষার জন্য ইতিমধ্যে চিঠি দেয়া হয়েছে। সংসদের মেডিকেল সেন্টারে শনিবার থেকে নমুনা জমা দিচ্ছেন এমপিরা। প্রথম দিন ২০ এমপি নমুনা দিয়েছেন। রোববার আরও ৪৫ জন দিয়েছেন। সব মিলিয়ে দুদিনে নমুনা দিয়েছেন ৬৫ জন। আজও কয়েক ডজন এমপি নমুনা দেবেন।

করোনা সংক্রমণের ঝুঁকির কথা বিবেচনা করে বাজেট অধিবেশনে এমপিদের ভাগ করে অংশ নেয়ার পরিকল্পনা আগেই নেয়া হয়। সে মোতাবেক প্রতিদিন ৮০-৯০ এমপি অংশ নেন। প্রত্যেক এমপির বসার স্থানে দূরত্ব বজায় রাখা হচ্ছে। এর পরও কয়েকজন আক্রান্ত হওয়ায় শঙ্কা তৈরি হয়েছে। এ কারণে করোনা পরীক্ষা করে সংসদে ঢোকার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

জাতীয় সংসদের চিফ হুইপ নূর-ই-আলম চৌধুরী জানান, আমরা তিন দিন নমুনা সংগ্রহের উদ্যোগ নিয়েছি। এটি বাধ্যতামূলক নয়। তবে এমপিরা স্বেচ্ছায় এসে নমুনা দিচ্ছেন।

এ পর্যন্ত দেশের ১৫ মন্ত্রী-সংসদ সদস্য সংক্রমিত হয়েছেন। তাদের মধ্যে দুজন ইতিমধ্যে মারা গেছেন।

শনিবার নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন নড়াইল-২ আসনের সংসদ সদস্য এবং জাতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা। ২-৩ দিন আগে থেকেই জ্বরে আক্রান্ত মাশরাফি বিন মুর্তজা। সেই সঙ্গে ছিল শরীর ব্যথা। পরে করোনা পরীক্ষার জন্য বৃহস্পতিবার নমুনা দেন তিনি। শুক্রবার মাশরাফির করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ আসে। বর্তমানে ঢাকার বাসায় আইসোলেশনে আছেন তিনি।

করোনা আক্রান্তদের মধ্যে রয়েছেন- মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক ও তার স্ত্রী লায়লা আরজুমান্দ বানু, বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি, পার্বত্য চট্টগ্রামবিষয়ক মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং।

ধর্ম প্রতিমন্ত্রী শেখ মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও সিরাজগঞ্জ থেকে নির্বাচিত আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মোহাম্মদ নাসিম করোনা আক্রান্তের পর ব্রেনস্ট্রোক করে মারা যান।

করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন সিলেটের সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান।

শুক্রবার সাবেক স্থানীয় সরকারমন্ত্রী ইঞ্জি. খন্দকার মোশাররফ হোসেন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হন। তিনি নিজেই আক্রান্ত হওয়ার তথ্য নিশ্চিত করেন।

এ ছাড়া সাবেক চিফ হুইপ উপাধ্যক্ষ আবদুস শহীদ, সাবেক হুইপ নওগাঁ-২ আসনের সংসদ সদস্য শহিদুজ্জামান সরকার, চট্টগ্রামের সংসদ সদস্য ও রেল মন্ত্রণালয় বিষয়ক কমিটির সভাপতি এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী, যশোর-৪ আসনের সংসদ সদস্য রণজিৎ কুমার রায়, চট্টগ্রাম-৮ আসনের সংসদ সদস্য মোসলেম উদ্দিন, জামালপুর-২ আসনের এমপি ফরিদুল হক খান দুলাল, চট্টগ্রাম-১৬ আসনের এমপি মো. মোস্তাফিজুর রহমান, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫ আসনের মোহাম্মদ এবাদুল করিম বুলবুল ও গণফোরামের এমপি মোকাব্বির খান করোনা আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন। এ ছাড়া সংসদ সচিবালয়ের প্রায় ১০০ কর্মকর্তা-কর্মচারী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। তারা আইসোলেশনে আছেন।

প্রসঙ্গত ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা শনাক্ত হয়। প্রথম মৃত্যু হয় ১৮ মার্চ। রোববার স্বাস্থ্য অধিদফতর থেকে জানানো হয়, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৩৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশে মোট ১ হাজার ৪৬৪ জন কোভিড রোগী মারা গেলেন।

এই সময়ে ৩ হাজার ৫৩১ জন শনাক্ত হয়েছেন। এ নিয়ে দেশে মোট শনাক্ত হলেন ১ লাখ ১২ হাজার হাজার ৩০৬ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন এক হাজার ৮৪ জন এবং মোট সুস্থ ৪৫ হাজার ৭৭ জন।

এ বিভাগের আরো সংবাদ