পরীক্ষা বেশি হচ্ছে বলে করোনা সংক্রমণ বেশি দেখা যাচ্ছে

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, করোনাভাইরাস শনাক্তের পরীক্ষা বেশি হচ্ছে বলেই আমেরিকার বিভিন্ন রাজ্যে সংক্রমণ বেড়ে যাচ্ছে। এখনই টেস্টিং বন্ধ করলে দেখা যাবে সংক্রমণ হলেও খুবই অল্প হচ্ছে। ১৫ জুন বয়স্ক নাগরিকদের সহযোগিতাবিষয়ক এক সভায় প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এসব কথা বলেন।

করোনাভাইরাস নিয়েও একেক সময়ে একেক কথা বলছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। এর আগে তিনি বলেছেন, সারা বিশ্বের মধ্যে আমেরিকায় বেশি করে টেস্টিং হচ্ছে, এ কারণেই অন্য দেশের চেয়ে করোনায় সংক্রমিতের সংখ্যা আমেরিকায় বেশি।

১৫ জুন সকালে দেওয়া এক টুইটবার্তায় প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেছেন, ‘অন্য দেশের চেয়ে আমাদের দেশে করোনার টেস্টিং ব্যাপক আকারে এবং উন্নত পদ্ধতিতে হচ্ছে (এটা আমরা খুব ভালো কাজ করছি)। এ কারণেই অনেক বেশি সংক্রমণ দেখা যাচ্ছে। টেস্টিং না হলে বা দুর্বল পদ্ধতিতে টেস্টিং হলে দেখা যেত, এই দেশে করোনা সংক্রমিত কোনো রোগীই প্রায় নেই।’

তিনি আরও বলেন, করোনার টেস্টিং হলো দুদিকে ধার দেওয়া তরবারি—এটা আমাদের খারাপ অবস্থাকে প্রকাশ্য করছে। অন্যদিকে, এটা একটি ভালো কাজ।’

হোয়াইট হাউসের কাছে করোনাভাইরাসের বিষয়টি এখন আর তেমন গুরুত্ব পাচ্ছে না; যদিও নতুন নতুন এলাকায় সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ছে। সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে কিছু কিছু এলাকায় নতুন করে লকডাউনের কথা উঠেছে। হোয়াইট হাউসের করোনাভাইরাস টাস্কফোর্স এ নিয়ে কোনো সংবাদ সম্মেলনও আর করছে না।

আমেরিকায় করোনা মহামারিতে এ পর্যন্ত ১ লাখ ১৮ হাজারের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। আরকানসাস, টেক্সাস, অ্যারিজোনা, অ্যালাবামা, ওকলাহোমা, ফ্লোরিডাসহ অন্তত ২০টি রাজ্যে সংক্রমণ বৃদ্ধি পাচ্ছে বলে নিউ ইয়র্ক টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। এসব বিবেচনা না করে সবকিছু স্বাভাবিক আছে বলে ট্রাম্প প্রশাসনের পক্ষ থেকে ধারণা দেওয়া হচ্ছে।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের সুরেই ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স বলেছেন, পরিস্থিতির উন্নতি হচ্ছে। নাটকীয়ভাবে বেশি করে টেস্টিং করা হচ্ছে বলে সংক্রমণ বেশি দেখা যাচ্ছে।

এ বিভাগের আরো সংবাদ