এটা আমার জন্য অপ্রত্যাশিত খবর: ইউক্রেনের ফার্স্টলেডি

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন পূর্ব ইউরোপের দেশ ইউক্রেনের প্রেসিডেন্টের স্ত্রী ওলেনা জেলেনস্কার।

শুক্রবার ওলেনা জেলেনস্কার করোনা পজিটিভ হওয়ার খবর সরকারিভাবে জানানো হয় বলে নিশ্চিত করেছে আন্তর্জাতিক বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

এছাড়া আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম টাইমস অব ইসরাইল ও ডেইলি সাবাহ এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

রয়টার্স জানিয়েছে, শুক্রবার ইউক্রেনের ফার্স্টলেডি ওলেনা জেলেনস্কাসহ ৬৮৩ জনের টেস্ট রিপোর্ট পজিটিভ আসে। করোনায় আক্রান্ত জেনে রীতিমতো হতভম্বহয়ে পড়েছেন প্রেসিডেন্টপত্নী।

এ বিষয়ে নিজের করোনায় আক্রান্তের খবর জানিয়ে ওলেনা জেলেনস্কা এক ফেসবুক পোস্টে লিখেছেন, আজ আমি করোনাভাইরাস টেস্টের রিপোর্ট হাতে পেয়েছি। রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। এটা আমার জন্য অপ্রত্যাশিত খবর। কারণ আমি এবং আমার পরিবার সব বিধিনিষেধ মেনে চলেছি এতোদিন। মাস্ক, গ্লাভস ব্যবহার করছি নিয়মিত। সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখেও জীবন যাপন করেছি।

এর পরও তার শরীরে কীভাবে করোনা সংক্রমিত হলো তার কোনো সূত্র খুঁজে পাচ্ছেন না তিনি।

পোস্টে ফার্স্টলেডি জনগণকে আশ্বস্ত করেন, আমি এখনও সুস্থ অনুভব করছি। হাসপাতালে ভর্তির প্রয়োজন দেখছি না। বাড়িতে স্বামী ও সন্তানদের কাছ থেকে আলাদা রয়েছি।

রয়টার্স জানিয়েছে, ফার্স্টলেডির স্বামী ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি ও এ দম্পতির দুই সন্তানের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে।

আর্ন্তজাতিক জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডওমিটারসে দেয়া সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী, এ পর্যন্ত ইউক্রেনে করোনায় আক্রান্ত হয়েছে ২৯ হাজার ৭৫৩ জন। মারা গেছে ৮৭০ জন। সুস্থ হয়েছে ১৩ হাজার ৫৬৭ জন। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ১৫ হাজার ৩১৬ জন। এদের মধ্যে ৩০৬ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

এখন পর্যন্ত ৪ লাখ ৬৮ হাজার ১৭২ জনের নমুনা পরীক্ষায় এসব তথ্য মিলেছে।

এ বিভাগের আরো সংবাদ