কারফিউ ভেঙে মদের পার্টি করায় নিষিদ্ধ ৬ ফুটবলার

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস তাণ্ডব চালালেও এর উৎপত্তিস্থল উহান শহর এখন অনেকটাই বিপদমুক্ত।

তবে ভাইরাসটি ফের সংক্রমণ এড়াতে সতর্কতাস্বরূপ এখনও চীনের কোথাও কোথাও কারফিউ বহাল রয়েছে।

আর এই কারফিউ অমান্য করে মধ্যরাতে মদের পার্টি করেছেন দেশটির অনূর্ধ্ব-১৯ দলের ছয় ফুটবলার।

কারফিউসহ স্বাস্থ্যবিধি ভঙ্গের দায়ে সেই ছয় ফুটবলারকে ছয় মাসের জন্য নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে চাইনিজ ফুটবল ফেডারেশন (সিএফএ)।

সিএফএর বরাত দিয়ে শুক্রবার চীনের সংবাদ সংস্থা শিনহুয়া নিউজ এজেন্সি এ তথ্য জানিয়েছে।

গণমাধ্যমটি জানায়, গত ১৭ মে থেকে অনূর্ধ্ব-১৯ ফুটবল দলের ৩৫ যুব ফুটবলারকে নিয়ে সাংহাইতে ক্যাম্প শুরু করেছিল সিএফএ। শনিবার সেই ক্যাম্পও হয়। আর তা শেষেই ওই ঘটনার জেরে ছয় ফুটবলারকে নিষিদ্ধ করে ফেডারেশন। তবে শাস্তি পাওয়া এসব ফুটবলারের নাম প্রকাশ করেনি সিএফএ।

এ বিষয়ে বিবৃতি দিয়েছে সিএফএ। সেখানে বলা হয়েছে– দলের পক্ষ থেকে দেয়া মহামারী সময়ের জন্য নির্দেশনা অমান্য করে গুরুতর অপরাধী হয়েছেন ওই ছয় ফুটবলার। বিষয়টি পুরো দলের ওপর নেতিবাচক প্রভাব ফেলেছে। তাই তাদের এ শাস্তি দেয়া গেল। আগামী ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত মাঠের বাইরে থাকতে হবে এই ছয় ফুটবলারকে।

এ বিষয়ে অনূর্ধ্ব-১৯ দলের হেড কোচ চেং ইয়াওডং বলেন, শাস্তি পাওয়া এসব ফুটবলা হলেন তাওকিয়াংলঙ, হে লংঘাই, হ্যান ডঙ, রেন লিহাও, পেং হাও এবং লিউ ঝুরঙ। এই ছয় খেলোয়াড়কে হারানো অবশ্যই আমাদের দলের জন্য বড় ক্ষতি। তবে এসব খেলোয়াড়ের ভবিষ্যতের জন্য এটি বড় এটি শিক্ষা হয়ে থাকবে।

এদিকে জানা গেছে, শুধু সিএফএর শাস্তিভোগই শেষ নয়, নিজেদের ক্লাব থেকেও বড়সড় শাস্তি পেতে পারেন কারফিউ অমান্য করে পার্টি করা এসব ফুটবলার।

তথ্যসূত্র: শিনহুয়া নিউজ এজেন্সি, চায়না অর্গ ডট সিএন

এ বিভাগের আরো সংবাদ