সীতাকুণ্ডে করোনা উপসর্গ নিয়ে পুলিশসহ দুইজনের মৃত্যু

সীতাকুণ্ডে করোনা উপর্সগ নিয়ে এক পুলিশ সদস্যসহ দুজন মারা গেছেন। তারা হলেন- এসআই একরামুল ইসলাম ও সাবেক সিবিএ নেতা শাহ আলম।

চারদিন সর্দি ও জ্বরে ভুগে মারা গেছেন সীতাকুণ্ড মডেল থানার সহকারী পরিদর্শক (এসআই) একরামুল ইসলাম (৪৫)। শুক্রবার রাতে পৌর সদরের ভূঁইয়া টাওয়ারে তিনি মৃত্যুবরণ করেন। শনিবার সকালে স্বাস্থ্যকর্মী ও পুলিশ সদস্যরা লাশ উদ্ধার করে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। পরে জানাজা শেষে একরামের বাড়িতে লাশ পাঠানো হয়।

এ ছাড়া করোনা উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন উপজেলার আফতাব অটোমোবাইল ফ্যাক্টরির শ্রমিক ও সাবেক সিবিএ নেতা শাহ আলম (৫৫)। তিনি পরিবার নিয়ে উপজেলার পাক্কা রাস্তার মাথার পশ্চিমে বসবাস করেন। শনিবার দুপুর ২টার সময় করোনা উপসর্গ নিয়ে হাসপাতালের গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ দিকে সীতাকুণ্ড মডেল থানার ওসি (ইন্টেলিজেন্স) সুমন বণিকসহ ৮ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে উপজেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ১২১ জন।
সীতাকুণ্ড থানার ওসি ফিরোজ হোসেন মোল্লা বলেন, করোনা উপসর্গ নিয়ে একরামুল ইসলাম নামে এক পুলিশ সদস্যের মৃত্যু হয়েছে। তার বাড়ি কুমিল্লার লাকসামে। এ ছাড়া ওসি (ইন্টেলিজেন্স) সুমন বণিক এবং থানার গাড়িচালক তৌহিদুল ইসলাম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন।

সীতাকুণ্ড উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. নুর উদ্দিন রাশেদ বলেন, পুলিশ সদস্যের লাশ এখানে আনা হলে তার নাক-মুখে ফেনা দেখা যায়। পুলিশ সদস্যরা জানায় তার জ্বর ও শ্বাসকষ্ট ছিল। আমরা তার নমুনা সংগ্রহ করেছি। রিপোর্ট হাতে পেলে প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে।

এ বিভাগের আরো সংবাদ