মসজিদ ভিত্তিক প্রধানমন্ত্রীর অনুদান কার?

প্রধানমন্ত্রী ঘোষীত নগদ ৫হাজার টাকার অনুদান বালাগঞ্জ উপজেলার প্রতিটি মসজিদ কতৃপক্ষের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে। উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে অনুদানের এই টাকা আনুষ্ঠানিক ভাবে বিতরণ করা হয়। কিন্তু অনুদানের এই টাকা নিয়ে ইমাম-মোয়াজ্জিন ও মসজিদ কমিটির মধ্যে রশি টানাটানি শুরু হয়েছে। এনিয়ে দেখা দিয়েছে বিভক্তি।

মূলত; এই টাকার দাবিদার মসজিদ কতৃপক্ষ নাকি ইমাম-মোয়াজ্জিনরা এ নিয়ে দেখা দিয়েছে নানা প্রতিক্রিয়া। অনুদান সংক্রান্ত ইসলামিক ফাউন্ডেশনের মহা পরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) আনিস মাহমুদ স্বাক্ষরিত ২০ মে প্রেরিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে- প্রধানমন্ত্রী বিদ্যমান করোনাভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতিতে দেশের সকল মসজিদে ১২২ কোটি ২ লক্ষ ১৫ হাজার টাকা অনুদান প্রদান করেছেন।

বিশ্বব্যাপি বিরাজমান করোনাভাইরাস কোভিড ১৯ সংক্রমণ পরস্থিতিতে স্বাস্থ্যবিথি ও সামাজিক দূরত্ব অনুস্মরণসহ নানাবিধ কারণে দেশের মসজিদগুলোতে মুসল্লিগণ স্বাভাবিকভাবে ইবাদত করতে পারছে না এতে দানসহ অন্যান্য সাহায্য কমে যাওয়ায় সজিদের আয় হ্রাস পেয়েছে। ফলে মসজিদের দৈনন্দিন ব্যয় নির্বাহ করা কঠিন হয়ে হয়ে পড়েছে। বিরাজমান পরিস্থিতিতে মসজিদ সমুহে আর্থিক অস্বচ্ছলতা দূরীকরণে প্রধানমন্ত্রী প্রতিটি মসজিদে আর্থিক অনুদান প্রদান করেছেন।

এবিষয়ে ইসলামিক ফাউন্ডেশন সিলেট বিভাগীয় কার্যালয়ের পরিচালক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ বলেন, এখানে বিভেদের কোনো কারণ নেই। মসজিদ কমিটির সিন্ধান্ত মোতাবেক এই টাকা ব্যয় করা হবে প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ রয়েছে।

এ বিভাগের আরো সংবাদ