দক্ষিণ কোরিয়ার ১০৪ বছরের বৃদ্ধার করোনা জয়

চলতি মাসের শুরুর দিকে সিঙ্গাপুরের এক ১০২ বছরের বৃদ্ধা কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হওয়ার পর সুস্থতা লাভ করেছিলেন। এবার সুস্থ হয়ে ওঠা প্রবীণদের তালিকায় যুক্ত হলেন তার চেয়েও বেশি বয়সী দক্ষিণ কোরিয়ার এক নারী।

১০৪ বছরের ওই বৃদ্ধার ডাক নাম চোই। সম্প্রতি তাকে রোগমুক্তির পর দক্ষিণ কোরিয়ার একটি হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। দক্ষিণ কোরিয়ায় কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হয়ে সেরে ওঠাদের মাঝে তিনিই সবচেয়ে বয়স্ক।

পোহাং মেডিকেল সেন্টার নামক হাসপাতালটির ওয়েবসাইটে প্রকাশিত এক বিবৃতিতে জানানো হয়, গত মার্চে কোভিড-১৯ রোগের উপসর্গ দেখা দেওয়ার চোইকে ভর্তি করা হয়। এরপর নিয়মিত চিকিৎসায় তার শারীরিক পরিস্থিতির উন্নতি দেখা দিলে চলতি সপ্তাহে তাকে আরও দুইবার করোনা টেস্ট করা হয়। পরীক্ষায় নেতিবাচক বা ভাইরাস সংক্রমণ মুক্ত ফল আসার প্রেক্ষিতে তাকে রিলিজ করা হয়েছে।

শতবর্ষী হওয়ার পরও করোনামুক্ত হওয়া বিরল হলেও এর আগে সিঙ্গাপুর, আইসল্যান্ড ও নেদারল্যান্ডসে সেরে ওঠেন কয়েকজন। বিশ্বে করোনা জয়ীদের মাঝে সবচেয়ে প্রবীণ নেদারল্যান্ডসের ১০৭ বছরের এক ব্যক্তি। তবে মজার বিষয় হলো; সেরে ওঠাদের সকলেই হলেন নারী। খবর ব্লুমবার্গের।

উত্তর গিয়ংসাং প্রদেশের শহর পোহাং থেকে ডায়েগু শহরের দূরত্ব ৪৪ মাইল। গত ফেব্রুয়ারি মাসের শেষদিকে এই ডায়েগু শহরেই প্রথম ‘গুচ্ছ সংক্রমণ বিস্তারের’ ঘটনা ঘটে দক্ষিণ কোরিয়ায়। সেখানে একটি ধর্মীয় সম্প্রদায়ের সমাবেশ থেকে এর বিস্তার ঘটে।

এদিকে, করোনাজয়ী বৃদ্ধা চোই জন্মেছিলেন আরেক ভয়ঙ্কর বিশ্ব মহামারির আগে। ১৯১৮ সালের স্প্যানিশ ফ্লু ইনফ্লুয়েঞ্জা নামে কুখ্যাত ওই মহামারিতে পুরো পৃথিবীজুড়ে ৫ কোটির বেশি বেশি মানুষ মারা যান।

এ বিভাগের আরো সংবাদ