করোনায় পুরুষের বেশি আক্রান্ত হওয়া নিয়ে ইউরোপের নতুন তথ্য

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের পর থেকে দেখা যাচ্ছে, নারীদের তুলনায় পুরুষরা এ রোগে বেশি আক্রান্ত হচ্ছেন। পুরুষদের এই রোগে আক্রান্ত হওয়ার কারণ নিয়ে শুরু থেকেই চিকিৎসকদের মধ্যে মতবিরোধ রয়েছে।

সোমবার ইউরোপের নতুন একটি গবেষণায় বলা হয়, পুরুষের রক্তে বিশেষ এক ধরনের এনজাইম উচ্চমাত্রায় থাকার ফলে তাদের করোনাভাইরাস আক্রান্ত হওয়া এবং মারা যাওয়ার ঝুঁকি নারীদের চেয়ে বেশি।

ইউরোপিয়ান হার্ট জার্নালে প্রকাশিত এক গবেষণা প্রতিবেদনে জানানো হয়, এই এনজাইম পুরুষের দেহের কোষে নতুন করোনাভাইরাস সংক্রমণ ঘটায় এবং রোগও মারাত্মক আকার ধারণ করতে পারে। নারীর দেহে এই এনজাইমের মাত্রা পুরুষের চেয়ে কম থাকে।

এতে আরও বলা হয়, অ্যানজিওটেনসিন-কনভার্টিং এনজাইম ২ (এসিই২) উচ্চমাত্রায় থাকে হৃদযন্ত্র, কিডনি, ফুসফুসসহ অন্যান্য অঙ্গপ্রত্যঙ্গে। এবং বিশেষ করে অণ্ডকোষে এর মাত্রা অনেক বেশি থাকে। কোভিড-১৯ পুরুষদের জন্য কেন বেশি ঝুঁকিপূর্ণ তা এ থেকেই অনুমেয়।

এসিই২ কোষের উপরিভাগে অবস্থান করে রিসেপ্টর হিসেবে কাজ করে। ফলে করোনাভাইরাস এই রিসেপ্টরে আটকে গিয়ে পর্দাভেদ করে ভেতরে ঢুকে সুস্থ কোষগুলোকে আক্রান্ত করে এবং ফুসফুসকেও সহজেই আক্রান্ত করতে পারে।

এর আগে ইতালির বিজ্ঞানীরা জানিয়েছিলেন, কোভিড-১৯ রোগীদের শরীরে হিমোগ্লোবিনকে ক্ষতিগ্রস্ত করে। সেই সঙ্গে রক্তে অক্সিজেন পরিবহনের জন্য লোহিত রক্তকণিকার ক্ষমতাকে ক্ষুণ্ন করে ও ফুসফুসকে ক্ষতিগ্রস্ত করে। ফলে তীব্র শ্বাসকষ্টের লক্ষণ দেখা দেয়।

ভারতীয় গবেষক সুব্রত কুণ্ডু মনে করেন, পুরুষরা অনেক বেশি বাইরের কাজ করেন।

তিনি বলেন, আসলে পুরুষরা নারীদের চেয়ে অনেক বেশি বাইরে বের হন। তাই তারা বেশি করে আক্রান্ত হয়েছেন। যেহেতু তারা বাইরে বের হচ্ছেন, তাই তারা করোনায় আক্রান্তদের সংস্পর্শে আসছেন। সেখান থেকে আক্রান্ত হচ্ছেন।

এ বিভাগের আরো সংবাদ